কয়েকটি মজাদার psychological fact

পুরোটা পড়ার সময় নেই? ব্লগটি একবারে শুনে নাও!

 

আমাদের মস্তিষ্ক খুবই জটিল। কখন কী চিন্তা করে কিংবা আমাদের করতে বলে, অনেক সময় তার জন্য আমরা প্রস্তুত থাকি না। এমন অনেক সাধারণ বিষয় আছে যার উপর নির্ভর করে মস্তিষ্কের এই জটিল কাজ। সেসব সাধারণ বিষয় জেনে নিলে অনেক কিছুকেই সাধারণভাবে নিতে পারবো। আজকে আমরা দেখবো কয়েকটি ভিন্ন সাইকোলজিকাল তথ্য যা আমরা হয়তো কখনো উপলব্ধি করতে পারিনি।

১। মানুষ সিদ্ধান্ত নেয় অবচেতন মনে

অনেক সময় অনেক গুরুত্বপূর্ণ বিষয়ে সিদ্ধান্ত নিতে হলে আমদের অনেক কিছু বিবেচনা করতে হয়, বিকল্প যাচাই বাছাই করা, সব ফলাফলের প্রভাব ইত্যাদি। কিন্তু আসলে আমরা সব সিদ্ধান্তই আমাদের অবচেতন মনে নিয়ে থাকি। কারণ, আমাদের মস্তিষ্ক প্রতি সেকেন্ডে ১১ মিলিয়ন বিট তথ্য গ্রহণ করতে পারে।

সুতরাং আমাদের মস্তিষ্কের এত বিশাল পরিমাণ তথ্য একসাথে যাচাই বাছাই করার ক্ষমতা নেই এবং আমরা যেই সিদ্ধান্ত নেই তা আসলে নিজেদের অবচেতন মনেই নিয়ে থাকি।

২। We want more choices, but choose better with fewer options

আমরা তখনই সঠিক সিদ্ধান্ত নেই যখন আমাদের হাতে বিকল্পের সংখ্যা কম থাকে। অধ্যাপক ড্যান এরিল্যি তাঁর “Predictably Irrational” বইয়ে তাঁর করা একটি গবেষণার কথা বলেছেন, যেখানে তাঁরা দুটো বুথ খুলেছেন জ্যাম বিক্রির জন্য।

একটি বুথে ২৪ রকমের জ্যাম দেয়া হয়েছিল এবং আরেকটিতে মাত্র ৬ রকমের। স্বল্প সংখ্যক বিকল্প থাকলেও সেই বুথে বিক্রির সংখ্যা ছয় গুণ বেশি ছিল সেই বেশি সংখ্যক বিকল্পের বুথের চেয়ে। সুতরাং আমরা তখনই ভালো সিদ্ধান্ত নিতে পারি যখন আমাদের হাতে বিকল্পের সংখ্যা কম থাকে।

৩। একটি অভ্যাস তৈরি করতে লাগে ৬৬ দিন!  

অনেক গবেষণায় দেখা গেছে কোন কিছুকে তোমার অভ্যাসে পরিণত করতে হলে ৬৬ দিনই যথেষ্ট। কেউ যদি সেই কাজটি টানা ৬৬ দিন ধরে করে, তবে সেটি তার অভ্যাসে পরিণত হয়ে যাবে। যেমন সকালে ঘুম থেকে উঠা, ব্যয়াম করা ইত্যাদি। কোন খারাপ অভ্যাস থেকে বের হতেও এটি প্রযোজ্য।

মজায় মজায় ইংরেজি শিখ!

৪। মানুষের পক্ষে Multi-tasking সম্ভব না

আমরা অনেককেই শুনেছি একসাথে অনেকগুলো কাজ করতে। মানুষের পক্ষে একসাথে একাধিক কাজ করা কখনোই সম্ভব নয়। আমাদের মস্তিষ্ক এক সময়ে শুধুমাত্র একটি কাজেই মনোযোগ দিতে পারে।

৫। মোবাইল ফোন থেকে দূরে থাকার ভয়কে বলে ‘Nomophobia’

২০১০ সালে একটি গবেষণায়  ‘Nomophobia’ নামের এই ফোবিয়াটি আবিষ্কার করা হয়। এটির পূর্ণ রুপ হচ্ছে ‘no mobile phone phobia’। গবেষণায় যাদের প্রশ্ন করা হয় তাদের ৫৪% মানুষই কখনো না কখনো এটির মুখোমুখি হয়েছে। গবেষণায় আরও দেখা গেছে  ‘Nomophobia’-তে পুরুষদের চেয়ে মেয়েরাই বেশি আক্রান্ত হয়।

৬। মস্তিষ্ক যখন ক্লান্ত তখনই হয় সৃজনশীল

কথাটি অদ্ভুত শুনালেও আসলে এটি সত্যি। তোমার মস্তিষ্ক যখন ক্লান্ত থাকে তখনই বিভিন্ন সৃজনশীল চিন্তা মাথায় আসে। তোমার হয়তো মনে হতে পারে, ক্লান্ত অবস্থায় মস্তিষ্ক তো কোন কাজে মনোযোগ দিতে পারে না! তবে জেনে নাও এটির বৈজ্ঞানিক ব্যাখ্যাও রয়েছে।

৭। ভ্রমণ দেয় Depression এবং হৃদ রোগ থেকে মুক্তি

যে যত ভ্রমণ করে তার বিষণ্ণতা এবং হৃদরোগ হওয়ার সম্ভাবনা তত কমে যায়। ভ্রমণ মানসিক সুস্থতা প্রদানে সাহায্য করে। সুতরাং তুমি যদি কোন ওষুধ ছাড়াই বাঁচতে চাও, তবে এখনি নেমে পড় ভ্রমণে।

৮। মনোযোগ ধরে রাখতে পারি শুধুমাত্র ১০ মিনিট

কখনো এমন হয়েছে, খুব গুরুত্বপূর্ণ ক্লাস করবে বলে প্রস্তুতি নিয়ে গিয়েছ এবং সিদ্ধান্ত নিয়েছ খুব মনোযোগ দিয়ে ক্লাসটি করবে, কিন্তু কিছুক্ষণ পর তা আর সম্ভব হলো না? এর কারণ হল আমরা কোন কাজে শুধু ১০ মিনিটই মনোযোগ ধরে রাখতে পারি। গবেষণায় দেখা গেছে কেউ ১০ মিনিটের উপর মনোযোগ ধরে রাখতে পারে না এবং এ সময়টুকুর পরেই মন অন্য চিন্তা করতে শুরু করে দেয়।

এই লেখাটির অডিওবুকটি পড়েছে তাওহিদা আলী জ্যোতি


১০ মিনিট স্কুলের লাইভ এডমিশন কোচিং ক্লাসগুলো অনুসরণ করতে সরাসরি চলে যেতে পারো এই লিঙ্কে: www.10minuteschool.com/admissions/live/

১০ মিনিট স্কুলের ব্লগের জন্য কোনো লেখা পাঠাতে চাইলে, সরাসরি তোমার লেখাটি ই-মেইল কর এই ঠিকানায়: [email protected]

লেখাটি ভালো লেগে থাকলে বন্ধুদের সঙ্গে শেয়ার করতে ভুলবেন না!
Author
Aysha Noman
এই লেখকের অন্যান্য লেখাগুলো পড়তে এখানে ক্লিক করুন
What are you thinking?